কুমিল্লার মনোহরগঞ্জে ব্যতিক্রমী আয়োজনে সহস্রাধিক গাছের চারা বিতরণ

কুমিল্লা

‘গাছে-গাছে বিয়ে’ঢোল-তবলা আর গান-বাজনার মধ্য দিয়েই শুরু হয় বিয়ের অনুষ্ঠান। পরে কাবিননামায় বর-কণের পরিচর্যাকারীদের স্বাক্ষর, গাছে-গাছের মালা বদল, সাক্ষীদের স্বাক্ষরগ্রহণ ও পারস্পরিক মিষ্টিমুখ করার মধ্য দিয়ে সম্পন্ন হয় গাছের বিয়ে।
কোমলমতি শিক্ষার্থীদের মাঝে বৃক্ষপ্রেম জাগরণের প্রত্যয়ে কুমিল্লার মনোহরগঞ্জে ব্যতিক্রমী এ আয়োজন করে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন লাল-সবুজ উন্নয়ন সংঘ। বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলার লক্ষণপুর নুরুল হক উচ্চ বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের মাঝে সহ¯্র গাছের চারা বিতরণ করা হয়।
গাছের চারা বিতরণ অনুষ্ঠানে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এস.এম শেখ কামালের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সোহেল রানা। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা ও কেন্দ্রীয় সভাপতি কাওসার আলম সোহেল, বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক আব্দুল আওয়াল চৌধুরী, মনোহরগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি মোঃ হুমায়ুন কবির মানিক প্রমুখ। অনুষ্ঠানে বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, অভিভাবক ও সমাজের গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।
লাল-সবুজ উন্নয়ন সংঘের প্রতিষ্ঠাতা ও কেন্দ্রীয় সভাপতি কাওসার আলম সোহেল বলেন, গত ৩ মাসে ‘লাল সবুজের প্রচেষ্টা, সবুজ করবো দেশটা’ এ ¯েøাগানে আমরা টিফিনের টাকা বাঁচিয়ে এ পর্যন্ত ৯৩ হাজার ৭০০ গাছের চারা বিতরণ করেছি। গাছে গাছে বিয়ের মাধ্যমে শিক্ষার্থীদেরকে গাছের সাথে বন্ধুত্ব স্থাপনে উৎসাহিত করা হয়েছে। যেন তারা গাছের চারার পরিচর্যাকে অত্যাবশ্যক মনে করে এবং তাদের দেখাদেখি অন্যরাও গাছের চারা রোপণ করে।
লাল-সবুজ উন্নয়ন সংঘের ব্যতিক্রমী উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সোহেল রানা বলেন, ‘গাছ আমাদের পরম বন্ধু। পরিবেশের ভারসাম্য রক্ষা ও সৌন্দর্য বর্ধনে গাছ রোপণের বিকল্প নেই। আমি আশা করি, লাল-সবুজ উন্নয়ন সংঘে থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে অন্যরাও সবুজায়নের লক্ষ্যে নিয়মিত বৃক্ষরোপণ করবে।’